Saturday, July 20, 2024
HomeKolkataMamata Banerjee : বাঁধা পড়েছে ব্যান্ডেজ, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মাথার সিটিস্ক্যান করা...

Mamata Banerjee : বাঁধা পড়েছে ব্যান্ডেজ, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মাথার সিটিস্ক্যান করা হল বাঙুরে !

spot_img
spot_img
- Advertisement -

নিউজবাংলা ডেস্ক : মুখ্যমন্ত্রীর জন্য গড়া হল মেডিক্যল বোর্ড। তাঁর মাথায় বাঁধা পড়েছে ব্যান্ডেজ। বাঙুর ইন্সটিটিউট অফ নিউরো সায়েন্সে তাঁর মাথার সিটিস্ক্যান করা হয়। হুইল চেয়ারে করে তাঁকে বাঙুর নিয়ে যাওয়া হয়। সিটিস্ক্যানের পর মুখ্যমন্ত্রীকে প্রথমে এসএসকেএম হাসপাতালের (Mamata Banerjee) উডবার্ন ওয়ার্ডে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সেখানেই তিনি চিকিৎসকদের নজরদারীতে থাকবেন বলে সিদ্ধান্ত হয়।

হাসপাতাল সূত্রে খবর, মুখ্যমন্ত্রীর মাথায় ৪টি স্টিচ পড়েছে বলে প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে। ইতিমধ্যে মুখ্যমন্ত্রীর অবস্থার খবর পেয়ে হাজার হাজার মানুষ এসএসকেএম হাসপাতালের উদ্দেশ্যে ছুটে গিয়েছেন বলে জানা গেছে। সূত্রের খবর, নিজের বাড়িতে পড়ে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর মাথায় গুরুতর চোট লাগে।

আরও পড়ুন : দুর্ঘটনায় গুরুতর জখম মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, মাথায় চোট নিয়ে ভর্তি হাসপাতালে !

কপালে কেটে গিয়ে মারাত্মক রক্তক্ষরণ শুরু হয়ে যায়। তাঁকে তড়িঘড়ি এসএসকেএম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসকরা দ্রুত স্টিচ করে তাঁর রক্তক্ষরণ থামান। মাথায় ব্যান্ডেজ বাঁধার পর চিকিৎসকরা জানান, এমআরআই প্রয়োজন না হলেও মুখ্যমন্ত্রীর মাথার সিটিস্ক্যান করা প্রয়োজন। সেই মতোই তাঁকে দ্রুত এসএসকেএম-এর পাশে বাঙুরে নিয়ে যাওয়া হয়।

এবিপি আনন্দ সূত্রে জানা গেছে, বাঙুর সেখান থেকে মুখ্যমন্ত্রীকে নিয়ে তাঁর বাড়ির পথে রওনা দিয়েছে কনভয়। মুখ্যমন্ত্রীর খোঁজ নিতে এসএসকেএম ছুটে আসেন রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস। ইতিমধ্যে মুখ্যমন্ত্রীর সুস্থতা কামনা করেছেন উপ রাষ্ট্রপতি জগদীপ ধনখড়, দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল প্রমূখরা। এছাড়াও সাধারণ মানুষ থেকে তৃণমূলের নেতা কর্মীরাও হাসপাতালের উদ্দেশ্যে ছুটে যান। তবে মুখ্যমন্ত্রীর ইচ্ছেকে প্রাধান্য দিয়ে হাসপাতাল থেকে তাঁকে কালিঘাটের বাড়িতেই ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

- Advertisement -

নিয়মিত খবরে থাকতে আমাদের সোশ্যাল সাইটে যুক্ত হয়ে যান

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments